আপনার জানার ও বিনোদনের ঠিকানা

‘সংরক্ষিত আসনে মনোনয়ন: কোন্দল বাড়াবে আওয়ামী লীগে’

নিজস্ব প্রতিবেদক: আওয়ামী লীগ ৪৮ টি সংরক্ষিত আসনের জন্য গতকাল তাদের মনোনয়ন চূড়ান্ত করেছে। ৪৮ টি আসনে যারা মনোনয়ন পেয়েছেন, তাদের অধিকাংশই বিভিন্ন স্থানীয় এবং জাতীয় পর্যায়ে পরিচিত ব্যক্তি এবং রাজনৈতিক অঙ্গনের সঙ্গে সরাসরি ভাবে যুক্ত। তবে আওয়ামী লীগের যে অভ্যন্তরীণ কোন্দল সেই অভ্যন্তরীণ কোন্দলে এদের কারও কারও সম্পৃক্ততা আছে। বিশেষ করে ৭ জানুয়ারি নির্বাচন কেন্দ্রিক যে আওয়ামী লীগের বিভক্তি বিভাজন সেই বিভাজনে সংরক্ষিত আসনে বিজয়ী নারী সংসদ সদস্যদের মধ্যে কারও কারও ভূমিকা রয়েছে। কেউ কেউ কোন পক্ষে অবস্থান করছেন। ফলে এদের মনোনয়ন আওয়ামী লীগের অভ্যন্তরীণ কোন্দল এবং বিরোধ আরও বাড়াবে কিনা সেই প্রশ্ন উঠেছে।

৭ জানুয়ারির নির্বাচন আওয়ামী লীগ তার নেতাকর্মীদের জন্য উন্মুক্ত করে দিয়েছিল। যারা মনোনয়ন পাননি তাদের স্বতন্ত্রভাবে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার সুযোগ ছিল। এই সুযোগে অনেকে নির্বাচন করেছেন। এর ফলে নির্বাচন উৎসবমুখর অংশগ্রহণমূলক হয়েছে এটি যেমন সত্যি, তেমনই এই স্বতন্ত্র নির্বাচন আওয়ামী লীগের বিভক্তি বিভাজন আরও তীব্র করেছে। সারা দেশে আওয়ামী লীগের কোন্দল ছড়িয়ে পড়েছে। কোথাও কোথাও হয়েছে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ, সহিংসতায়, প্রাণ হারিয়েছেন অনেকেই। এরকম বাস্তবতায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একাধিকবার অতীত যা হবার তা হয়ে গেছে, ভুল বোঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার জন্য আহ্বান জানিয়েছেন এবং সর্বশেষ তিনি দলের বর্ধিত সভাতেও এই একই আহ্বান জানান। কিন্তু সেই আহ্বানে সাড়া দিয়ে কেউ এখন পর্যন্ত সহিংসতা কমিয়েছে বা স্বাভাবিক অবস্থানে ফিরে এসেছে এমন কোন নজির পাওয়া যায়নি। তবে সংরক্ষিত আসনে যাদের মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে, তাদের কেউ কেউ মনোনয়ন পাওয়ায় তাদের এলাকায় এই বিরোধ আরও বাড়বে বলে অনেকেই শঙ্কা প্রকাশ করছেন।

মুন্নুজান সুফিয়ানকে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে খুলনা। খুলনায় মুন্নুজান সুফিয়ান এর আগে সরাসরি ভোটে নির্বাচিত হয়েছিলেন। এবার জনমত জরিপে তিনি পিছিয়ে থাকে তার বদলে এস এম কামাল হোসেনকে মনোনয়ন দেয়া হয়। এস এম কামাল হোসেনকে মনোনয়ন দেওয়ার পর মুন্নুজান সুফিয়ানের সমর্থকরা সেখানে প্রতিবাদ বিক্ষোভ করে। সড়ক অবরোধের কর্মসূচিও পালন করেছিল। এখন মন্নুজান সুফিয়ানও এমপি হলেন। এর ফলে এস এম কামাল হোসেনের কর্মীদের সঙ্গে মুন্নুজান সুফিয়ানের কর্মীদের বিরোধ বেড়ে যেতে পারে এমন ধারণা করছেন অনেকে।

মেহের আফরোজ চুমকি পরাজিত হয়েছিলেন আওয়ামী লীগের আরেক নেতা ডাকসুর সাবেক ভিপি আখতারুজ্জামানের কাছে। আখতারুজ্জামান মনোনয়ন না পেয়ে স্বতন্ত্র নির্বাচন করেন এবং মেহের আফরোজ চুমকিকে হারিয়ে দেন। সেখানে আওয়ামী লীগ এমনিতেই দ্বিধাবিভক্ত রয়েছে। এখন চুমকি আবার নির্বাচিত হওয়ায় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা স্পষ্টতই সেখানে দ্বিধাবিভক্ত হয়ে পড়বে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বরিশাল থেকে শাম্মী আহমেদ ছিলেন আওয়ামী লীগের মূল প্রার্থী। কিন্তু নাগরিকত্ব জটিলতার কারণে তিনি শেষ পর্যন্ত নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারেননি। কিন্তু নির্বাচনের আগে থেকেই তার সঙ্গে পঙ্কজ দেবনাথের বিরোধী একটি প্রকাশ্য বিষয়। এখন শাম্মী আহমেদ আবার নির্বাচিত হলেন। এর ফলে পঙ্কজ-শাম্মী বিরোধ বরিশালকে উত্তপ্ত করে তুলতে পারে বলে অনেকে আশা করছেন।’

ঢাকা-৪ আসনে সানজিদা খানম পরাজিত হয়েছিলেন এবং তার প্রতিদ্বন্দ্বীও আওয়ামী লীগের ড. আওলাদ হোসন। যিনি এক সময় প্রধানমন্ত্রীর একান্ত সচিব হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন। ৭ জানুয়ারি নির্বাচনের পর সেখানে আওয়ামী লীগ দ্বিধাবিভক্ত অবস্থায় আছে। এখন সানজিদা খানম আবার সংরক্ষিত কোটায় এমপি হওয়ায় সেখানে আওয়ামী লীগের কোন্দল বাড়বে বলেই অনেকে মনে করছেন। এরকম বিভিন্ন স্থানে যারা প্রার্থী হতে চেয়েছিলেন বা হতে পারেনি বা নির্বাচনে হেরেছেন তাদের সঙ্গে আওয়ামী লীগের যারা নির্বাচিত হয়েছেন বা হননি তাদের বিরোধ এখন আরও জোরালো হবে কেউ কেউ শঙ্কা প্রকাশ করছেন। তবে আওয়ামী লীগের নেতারা বলছেন যে, সংরক্ষিত আসনে মনোনয়ন দেওয়ার ফলে বিরোধ বাড়বে না। প্রধানমন্ত্রী যেহেতু পরামর্শ দিয়েছেন সকলে মিলেমিশে কাজ করার জন্য সেজন্য আমরা প্রত্যাশা করি সকলে মিলেমিশে দেশের জন্য কাজ করবে, উন্নয়নের জন্য কাজ করবে।’

Facebook
Twitter
WhatsApp
Pinterest
Telegram

এই খবরও একই রকমের

যশোরে সরকারি রাস্তার পাশ থেকে গাছ বিক্রি

জেমস আব্দুর রহিম রানা: যশোর সদর উপজেলার লেবুতলা ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের বীর নারয়নপুর গ্রামে মাঠের মধ্যে সরকারি রাস্তার দু’পাশ থেকে একটি চক্র গাছ বিক্রি করেছেন।

ভালোবাসা দিবসে স্ত্রীর বিচ্ছিন্ন মাথা নিয়ে যুবকের কাণ্ড

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ভালোবাসা দিবসে নিষ্ঠুর হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছেন এক স্বামী। স্ত্রীর ভালোবাসা না পেয়ে তার বিচ্ছিন্ন মাথা হাতে নিয়ে গোটা গ্রাম ঘুরে বেড়িয়েছেন ওই যুবক। এমন

সংঘাত নয়, আলোচনায় সমাধান চাই: প্রধানমন্ত্রী

বাংলাদেশ যে কোনো সংঘাত আলোচনার মাধ্যমে সমাধান চায় বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, সংঘাত নয় শান্তি চাই। সোমবার (২৯ মে) আন্তর্জাতিক শান্তিরক্ষী দিবস-২০২৩

বাড়ি ফেরার আনন্দে মিলিয়ে যাচ্ছে ছোট ছোট ভোগান্তি’

নিজস্ব প্রতিবেদক: দরজায় কড়া নাড়ছে ঈদ। ঈদের আনন্দ পরিবারের সাথে ভাগ করে নিতে ঘর মুখি হচ্ছে মানুষ। অপেক্ষা ছিল সময় আর ছুটির। এবারের ঈদযাত্রায় বাড়তি

রাজশাহীতে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস পালিত

তানজিলা আক্তার রাজশাহী, প্রতিনিধি: রাজশাহী, ১৭ এপ্রিল ২০২৪ রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে যথাযথ মর্যাদায় ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উদযাপন করা হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষ্যে সকালে মহানগরীর

বউ ভাড়া পাওয়া যায় যে গ্রামে

ঠিকানা টিভি ডট প্রেস: আপনি কি বউ খুঁজছেন? তাহলে আপনার জন্য রয়েছে সুখবর! ভাড়ায় পাবেন বউ। প্রয়োজন অনুসারে কখনো ঘণ্টা ভিত্তিক, আবার কখনো সারাদিনের জন্য